টাক

বুধবার, ০৬ জানুয়ারি ২০২১ | ৫:৩৪ অপরাহ্ণ | 290 বার

টাক

বয়স বাড়ার সাথে সাথে মাথার চুল কমতে থাকে। কারও কারও চুল বেশিই পড়ে যায়। তখন এটা টাক। চুল ঝরে পড়া বা টাক পড়ার ব্যাপারটি প্রাকৃতিক। এ নিয়ে বিব্রত হওয়ার কিছু নেই। টাক নিয়ে রগড় করাও এক ধরনের অসভ্যতা।

আমরা কারও শারীরিক খুঁত দেখলে অবলীলায় কানা, ল্যাংড়া, লুলা, এসব বলি। এটাও অসভ্যতা। ছাত্রজীবনে দেখেছি, অনেক বড় বড় ছাত্রনেতাও বঙ্গীয় মুসলিম লীগের একসময়ের প্রতাপশালী নেতা আবুল হাশিমকে কানা হাশিম বলে উপহাস করত। আবুল হাশিম শেষ বয়সে দৃষ্টিশক্তি হারিয়েছিলেন। যারা তাকে কানা হাশিম বলে মজা পেত, তারা কেউ আবুল হাশিমের পায়ের নখেরও যোগ্য নয়।

টাক ঢাকার জন্য অনেকেই পরচুলা পড়েন। ভাবেন তিনি বোধহয় আগের মতোই জোয়ান আছেন। মানে, নিজের প্রকৃতিদত্ত চেহারাটি তিনি লুকোতে চান। সোজা কথা, অন্য কেউ তার টাক দেখে ফেললে যেন তার সর্বনাশ হয়ে যাবে। হয়তো তিনি ভাবেন, তার ব্যাক্তিত্ব বুঝি চুলে। আত্মবিশ্বাসহীন লোকেরাই এ রকম ভাবেন। তাছাড়া, পরচুলা পড়লে তো বোঝা যায় যে, এটি নকল চুল।

অনেক বছর আগের কথা। রিনি রেজা তখন চলচ্চিত্রে অভিনয়ে বেশ নাম করেছেন। একবার তিনি একটা মোটা বাজেটের ছবির অফার ফিরিয়ে দেন। বলেন, পরচুলা পড়া কোনো নায়কের বিপরীতে তিনি নায়িকার ভূমিকায় অভিনয় করবেন না। এটি সংবাদ শিরোনাম হয়েছিল। ওই ছবিতে সোহেল রানার অভিনয় করার কথা ছিল।

Facebook Comments Box

দ্বিতীয়বারের মতো ফ্রাঙ্কফুর্ট বইমেলায় শওকত হোসেন লিটু