জীবন মৃতের সন্ধিক্ষণে

শনিবার, ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ | ৩:৩০ অপরাহ্ণ | 205 বার

জীবন মৃতের সন্ধিক্ষণে

 

আত্মার ঐশ্বর্য

ধ্যানের চেতনায়
বোধিসত্ত্বের মোহনায়
ভেসে বেড়াচ্ছে অনন্ত আত্মার জলছবি।

কে কখন অবগাহন করে শুদ্ধতম মানুষ হয়ে অনন্তে মিলবে
কালের প্রচ্ছায়া বসন্তের কোকিলের মতো মিহি সুরে গান গেয়ে সে কথাই বলে।

পৃথিবীর তাবৎ আনন্দ
সৃজন ও ধ্বংসের হাত ধরে নতুন কুঁড়ির মতো
হেসে হেসে বলে আমি আছি তোমাদেরই মাঝে
কেনো খোঁজও না আমায় বিদ্যাসাগরে!

হৃদয় নৈবদ্যে সহজ মানুষ বসে আছে আসন গেড়ে
দেখছে জগতের খেলা
তাই তো জগত ডুবে আছে আনন্দের মেলায়।

আত্মার ঐশ্বর্যগুণ পথ দেখায় অন্ধকারে
না যেন ভুলি আমার আসল মানুষটারে।

প্রভু, তুমি আছো আমার হৃদয় মাজারে
স্বর্গীয় অনুভুতি নিয়ে বঙ্গীয় ব-দ্বীপে।

স্মৃতির আঙিনা

স্মৃতির গন্ধ মস্তিষ্কের কোণায় কোণায়
খেলা করে দুঃখের বীণায়
অতীতকে আঁকড়ে মহাজীবনের আঙ্গিনায়
জীবন মৃতের সন্ধিক্ষণে
বেঁচে আছি স্মৃতির সনে।

আবেগের পেয়ালায় নিঃসঙ্গতা
নতুন গল্পের আদল বোনে।

স্মৃতির অনু লেপ্টে আছে
কাঠগোলাপের সৌন্দর্যে
প্রত্নস্মৃতির লাবণ্য প্রভা
করুণ সুরে গাইছে গান
অষ্টপ্রহর মনের বনে।

রঙিন স্বপ্নগুলো কালো হয়ে
বেদনায় এঁকেছে রংধনু
নিঃসঙ্গতার গ্রাসে মানুষের বেড়েছে হাঁসফাঁস।

স্মৃতি ঘন অন্ধকারে
কুয়াশার কান্না ভুলে
বসে আছি আলোর তরে।

কল্পনার আল্পনায়
আয়ুরেখা বয়ে যায় অদূর সীমান্তে।


দেশের বই পোর্টালে লেখা ও খবর পাঠাবার ঠিকানা : desherboi@gmail.com

Facebook Comments