প্রতিদিনের কবিতা

জীবন কেবল ছুটে যায় আততায়ী ইস্কুলে

শনিবার, ২৩ জানুয়ারি ২০২১ | ২:৪৭ অপরাহ্ণ | 374 বার

জীবন কেবল ছুটে যায় আততায়ী ইস্কুলে

‘প্রতিদিনের কবিতা’ দেশের বই-এর নতুন আয়োজন। এই আয়োজনে প্রতিদিন তরুণ কবিদের একগুচ্ছ কবিতা প্রকাশ করা হয়। আজ প্রকাশিত হলো জারিফ এ আলম’র কবিতা


 

মধ্যবিত্ত

নিজেকে গোছাতে গিয়ে ভেঙে পড়ছে
ফুঁকে দেয়া কাম ও প্রেম ফসলের প্রাচীর।

হাওরের জলে ডুবতে ‍ডুবতে ভেসে যাচ্ছে
আশৈশব লালিত স্বপ্নের মৃদু হাহাকার
শ্বাস বিরূদ্ধ যৌবনের খরস্রোতে বারবার।

বিপরীত দৃশ্যের ভেতরে তেরছা রোদ এসে
তাণ্ডব করে যায় শিথানে; নিযুত বোঝাপড়ায়।
অথচ এই রোদ মাখনের মতো চেটে নিয়ে
আমিও হতে পারতাম লাভবান ব্যবসায়ী।

পুঁজিবাদী ফড়িয়া হয়ে যায় সমাজতন্ত্রের একজন;
মানুষের সমতার কথা মানিয়ে যায় তার মুখেও।
অথচ আমিই কেবল জীবনধারণে মরিয়া
হয়ে উঠেছি; স্বপ্নের কফিনে পেরেক ঠুকে ঠুকে।

ক্রমশ প্রকাশ্য

ফুরিয়ে যাচ্ছে হইচই মগ্নতার বুক চিরে
বিন্দুকে কেন্দ্র করে ঘুরতে ঘুরতে যখন
সরললেখা মিলিয়ে যাচ্ছে শূন্যের ওপারে
মহামারির জীবনবৃত্তান্ত তখন চারপাশে
নিঃশ্বাস হয়ে ওঠে বিষের চেয়ে বড় ঘাতক।

তিন ফিট দূরত্ব তখন বড় বেশি প্রয়োজন
আপাতত এটুকু সান্ত্বনা নিয়মের সমন্বতায়।
কেটে যাচ্ছে সময়; নিরাপদ দূরত্বে
দূরে থাকা; কাছে আসার প্রত্যয় মূলত।

এই বেঁচে থাকাই অর্থবহ তোমার আমার
আরো যদি নিকটের হও
আরো প্রেম প্রয়োজন
কাছে না আসা বড্ড বেশি বেদনার।

না হওয়া গল্প

ছুঁড়ে দেয়া স্বপ্ন লুফে নিয়ে দৌঁড়াচ্ছি
দৌঁড়াতে দৌঁড়াতে ভুলে গেছি :
গন্তব্য কোথায়; জানা নাই!

আততায়ী ইস্কুল

শেষ অন্ত্যমিল মেলাতে গিয়ে বন্ধ দরোজার আশপাশে ঘুরঘুর করে, ঝরে যাওয়া ফুলের বিদেহী আত্মাসকল। হোয়াইট হাউজে সংরক্ষিত নিরাপদ স্বপ্নরাও আজ আত্মহত্যার কথা ভাবে। জোলার প্রকৃতিচারতিা কিম্ভূত ক্যাঙারু হয়ে লাফিয়ে চলে। সার্ত্রের উঠোনজুড়ে অস্তিত্ববাদের মহড়া। সংসারী হাওয়া গায়ে লাগিয়েও ফুরফুরে আতরের গন্ধ নিয়ে কতো সহজেই মৃত শব হয়ে বেঁচে থাকা যায়। দুঃখে জড়িয়ে থাকা কিংখাবে জীবন কেবল ছুটে যায় আততায়ী ইস্কুলে।


দেশের বই পোর্টালে লেখা ও খবর পাঠাবার ঠিকানা : desherboi@gmail.com

Facebook Comments Box

দ্বিতীয়বারের মতো ফ্রাঙ্কফুর্ট বইমেলায় শওকত হোসেন লিটু